5:10 am - Friday January 19, 2018

ধর্ষিতা শিশুর শেষ লেখা: আমি জয়নাব, ক্লাস ওয়ানে পড়ি

নিখোঁজ হয়ে যাওয়া শিশুর মরদেহ পাওয়া গেছে জঞ্জালের ভিতরে। মেডিকেল রিপোর্ট জানায়, ছোট্ট জয়নাবকে পাশবিকভাবে ধর্ষণ করা হয়েছে।এই ঘটনায় কেঁপে উঠেছে পুরো পাকিস্তান।

জয়নাবের জন্য বিক্ষোভে মৃত্যুও হয়েছে দু’জনের। এর মধ্যে টুইটারে ভেসে উঠল জয়নাবের লেখা শেষ হোমওয়ার্ক। আর সেই লেখাই যেন কুরে খাচ্ছে সবাইকে।

জয়নাবকে অপহরণের ধর্ষণ করে হত্যা করা হয়েছে। তার আগে শেষবার সে খাতায় লিখেছিল, ‘আমি একটি মেয়ে, আমার বয়স সাত বছর, আমার নাম জয়নাব, আমার বাবার নাম আমিন। আমি ক্লাস ওয়ানে পড়ি, আমি আম খেতে ভালবাসি।’

কাঁচা হাতের লেখায় উর্দুতে একথা লিখেছে সে। রয়েছে তার স্কুলের ব্যাগ। সেই ছবি দেখলে সত্যিই বুক কেঁপে উঠবে।

গত সপ্তাহে পাকিস্তানের কসুর থেকে জয়নাব নিখোঁজ হয়ে যায়। চারদিন পর মঙ্গলবার কসুরে তার মৃতদেহ উদ্ধার হয়। তার মৃত্যুতে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে কসুর। থানায় ভাঙচুর চালান বাসিন্দারা। পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশ ফায়ারিং করতে বাধ্য হয়।

এই ঘটনায় দু’জনের মৃত্যুও হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও তিনজন। এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন অভিনেতা থেকে রাজনৈতিক নেতারাও।

গত এক বছরে কসুরে এই নিয়ে ১২টা ধর্ষণ ও খুনের ঘটনা ঘটল কসুরে। নিরাপত্তাহীনতার অভিযোগে স্থানীয় থানা, হাসপাতাল থেকে শুরু স্থানীয় নেতাদের বাড়িতেও ভাঙচুর করে, পাথর ছুঁড়ে সাধারণ মানুষ।

ধর্ষক ও খুনিকে ধরতে পারলে ১ কোটি টাকা পুরষ্কার দেওয়া হবে বলে ঘোষণা করেছে পাকিস্তানের পঞ্জাব প্রদেশের সরকার।
পূর্বপশ্চিমবিডিডটকম


Filed in: ক্রাইম ওয়ার্ল্ড
error: Content is protected !!