7:42 am - Tuesday January 16, 2018

লাভবাইট কি? একে কোথায় দেখা যায়? এর থেকে কি কি হতে পারে?

লাভবাইট। বিষয়টির মধ্যেই একটা দুষ্টুমিষ্টি ভাব রয়েছে। মিলনের সময় বা একে অপরকে ভালোবাসার সময় অনেকেই এই লাভবাইট দিয়ে থাকেন। আবার অনেক সময় দুষ্টুমি করেও অনেকে পার্টনারের ঘাড়ে লাভবাইট দেন। সেটা অবশ্য শরীরের যে কোনও জায়গাতেই হতে পারে। বাইটের সময় একটু কষ্ট লাগলেও, পরে লাল রঙের ওই দাগ দেখতে অনেকেই পছন্দ করেন। সে যাই হোক না কেন লাভবাইটের এমন অনেক বিষয় রয়েছে যা অনেকেই জানেন না।

কী সেগুলি ?

লাভবাইট আসলে কালশিটের দাগ

লাভবাইট কালশিটের দাগ ছাড়া আর কিছুই নয়। খুব জোরে ঠোঁট দিয়ে বা দাঁত দিয়ে কামড়ানোর ফলে শরীরের ওই জায়গাতে কালশিটে পড়ে যায়।

পশু-পাখিরাও এই বাইট দেয়

শুধু মানুষই নয়। লাভবাইট দেয় পশু-পাখিরাও। একথা হয়তো অনেকেরই জানা নেই। পুরুষ পশু-পাখিরাও মিলনের সময় তাদের পার্টনারকে গলার কাছে লাভবাইট দেয়।

এটিকে মেকআপের দ্বারা ঢেকে ফেলা যায় না

এটিকে মেকআপের দ্বারা খুব সহজে ঢেকে রাখা যায় না। পুরোনো দিনের মানুষদের কিছু না কিছু বলে ঠিক ভুলিয়ে রাখা যেত। কিন্তু, আপনার কলিগ বা বন্ধুদের থেকে এই দাগ লুকাবেন কীভাবে ? কনসিলার দিয়ে এই দাগ ঢেকে রাখতে পারেন। ত্বকের চেয়ে হালকা কোনও কনসিলার বাছুন। তারপর তা লাভবাইটের উপরে লাগিয়ে দিন। এমনভাবে লাগান যে বিষয়টি যেন ঢাকা পড়ে যায়।

আয়রনের পরিমাণ কম থাকলে

কামড়ানোর পরও অনেকের শরীরে আবার লাভবাইটের কোনও দাগ পড়ে না। তাদের অবশ্য চিন্তার কোনও কারণ নেই। বরং শরীরে যদি খুব তাড়াতাড়ি দাগ পড়ে যায় তাহলে সঙ্গে সঙ্গে আপনার খাবারের তালিকার পরিবর্তন করুন। কারণ শরীরে আয়রনের পরিমাণ যদি অনেক কম থাকে তাহলে কালশিটের মতো দাগ খুব তাড়াতাড়ি পড়ে যায়।

স্ট্রোক হতে পারে

অবাক হলেও এটা সত্যি। লাভাবাইট থেকে স্ট্রোক পর্যন্ত হতে পারে। ২০১১ সালে নিউজ়িল্যান্ডে এক মহিলাকে তাঁর স্বামী গলার কাছে লাভবাইট দিয়েছিলেন। ওই বাইট থেকে তাঁর ঘাড় থেকে ব্যথা শুরু হয়। বেশ অনেকদিন ধরে ভুগেছিলেন তিনি। সেই ব্যথা ক্রমশ হাতে নেমে আসে। যার ফলে তাঁর বাঁ হাতটি প্যারালাইজ়ড হয়ে যায়।

মুখে কোনও সমস্যা হতে পারে

শরীরের কোনও অংশে লাভবাইট দেওয়ার ফলে ওই স্থানে থাকা জীবাণু অনেক সময় মুখে ঢুকে যায়। যার থেকে মুখে ইনফেকশনও হতে পারে।

বরফ লাগাতে পারেন

লাভবাইট যদি সঙ্গে সঙ্গে ঢাকতে চান তাহলে সেই স্থানে বরফ লাগাতে পারেন। ফ্রিজ় থেকে একটা বরফের কিউব বের করে লাভবাইটের জায়গাতে সেটিকে অন্তত ১৫-২০ মিনিট ধরে রাখুন। এতে দেখবেন ব্যথা ও দাগ দুটোই চলে যাবে। বরফ না থাকলে ঠান্ডা চামচও ওই জায়গাতে ধরতে পারেন।


Filed in: লাইফ স্টাইল
error: Content is protected !!