11:19 am - Tuesday February 20, 2018

জঙ্গলে পরে আছে নারীর নগ্ন মৃত দেহ!

পরনের সুতো মাত্র নেই। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছিল নগ্ন ওই নারীকে ধর্ষণ করে খুন করা হয়েছে। তবে এ ঘটনার পিছনে রয়েছে আরও ভয়াবহ ঘটনা।

ভারতের মহকুমার তালঘেরার একটি ঝোপের মধ্যে থেকে বেরিয়েছিল পা। তা দেখেই সন্দেহ হয়েছিল বনকর্মীদের। কিছুটা উঁকি দিতেই গা শিউরে ওঠে তাঁদের। মাথায় একাংশ থেঁতলে গিয়েছে।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে টহলদারীর সময়ে তারঘেরা জঙ্গলের ৪ নম্বর কম্পার্টমেন্টে ওই নারীর দেহ পড়ে থাকতে দেখেন বনকর্মীরা। খবর দেওয়া হয় বন আধিকারিক ও পুলিশকে। আপাদত দৃষ্টিতে নারীকে দেখে মনে হয়েছিল যৌন নির্যাতিনের শিকার হয়েছিলেন তিনি। তারপর প্রমাণ লোপাট করতে খুন করা হয় তাঁকে। কিন্তু কিছুক্ষণের মধ্যেই ভুল ভাঙে বন আধিকারিক ও পুলিশের। জঙ্গলের বুনো হাতির পায়ের ছাপ লক্ষ্য করা যায়। মহিলার মাথার একাংশ যেভাবে থেঁতলে গিয়েছে, সেটিও কোনও মানুষের পক্ষে করা সম্ভব নয় বলেই মনে করছেন তদন্তকারীরা। মনে করা হচ্ছে, জঙ্গলের রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময়ে বুনো হাতির সামনে পড়েছিলেন ওই মহিলা।

পালানোর আগেই বুনো হাতির পাল আছড়ে মারে তাঁকে। ধস্তাধস্তিতে পোশাকও ছিঁড়ে যায় তাঁর। দেহটি উদ্ধার করে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। কিন্তু মুখ ও মাথা থেঁতলে যাওয়ায় এখনও দেহ শনাক্ত করা সম্ভব হয়নি।


Filed in: বিভিন্ন সংবাদ