8:54 am - Wednesday December 13, 2017

প্রসব যন্ত্রণায় মাটিতে লুটিয়ে পড়েন হালিমা

গর্ভ নষ্ট করতে বলেছিলেন স্বামী। না মানায় স্ত্রীর ওপর নির্যাতন করেন।

একপর্যায়ে ইনজেকশন দেন। অসুস্থ হয়ে পড়লে গতকাল মঙ্গলবার সকালে স্ত্রীকে তুলে নিয়ে নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভবনের পেছনে ফেলে চলে যান। ওই সময় রাস্তার ওপর মৃত সন্তান প্রসব হয়। প্রসব যন্ত্রণায় ছটফট করতে থাকেন রক্তাক্ত প্রসূতি।

নিজেকে বাঁচাতে হাসপাতালের দিকে যাওয়ার চেষ্টা করেন কিন্তু পারেননি। একপর্যায়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন।

এই প্রসূতিকে রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখেন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মাঠকর্মী নজরুল ইসলাম। তিনি ছুটে যান পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. হাবিব ইসমাঈল ভুইয়ার কাছে। কর্মকর্তা অন্যদের সহযোগিতায় প্রসূতিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন।

তিনি চিকিৎসার খরচ বহন করেন। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ওই নারীকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করান।
উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা গেছে, প্রসূতির নাম হালিমা বেগম (৩৬)।

তিনি বন্দর উপজেলার লাঙ্গলবন্দের বাসিন্দা। তাঁকে বরিশালের যুবক আল আমিন বিয়ে করেন। তাঁরা সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইলে ভাড়া বাসায় থাকতেন।

হাসপাতাল সূত্র জানায়, রাস্তায় প্রসব হলেও ওই নারী চেতনা ফেরার পর সন্তান খুঁজে না পেয়ে কান্নাকাটি করেন। যেখান থেকে তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়, তার ১০০ গজ দূরে পুলিশ এক নবজাতকের লাশ উদ্ধার করেছে।

নবজাতক হালিমার কি না এলাকাবাসীর মধ্যে এ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। অনেকে বলেছেন, ওই নারী মানসিক ভারসাম্যহীন।

আড়াইহাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসা কর্মকর্তা শান্তা ত্রিবেদী জানান, সাত-আট মাসে সন্তান প্রসব হয়েছে। তাঁকে অস্ত্রোপচার করে প্রাথমিক চিকিৎসা করিয়ে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ হওয়ায় তাঁর অবস্থা আশঙ্কাজনক।

 

পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. হাবিব ইসমাঈল ভুইয়া বলেন, ‘হালিমা মানসিক ভারসাম্যহীন নন। তাঁকে নির্যাতন করে মানসিক ভারসাম্যহীনে পরিণত করা হয়েছে। ’

 

আড়াইহাজার থানার উপপরিদর্শক মজিবুর রহমান জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের একটু দূর থেকে নবজাতকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তার পরিচয় পাওয়া না গেলেও স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তৃপক্ষ বলছে, এটি হালিমার। ঘটনা তদন্ত করে বিস্তারিত জানার চেষ্টা চলছে।


Filed in: হেলথ টিপস